1. [email protected] : Joyanta Goswami : Joyanta Goswami
  2. [email protected] : Developer :
  3. [email protected] : News Point : News Point
রবিবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৭:৩৩ পূর্বাহ্ন

নিউজ পয়েন্ট সিলেট

শনিবার, ২০ মার্চ, ২০২১

হজরত শাহ সূফী আরকুম আলী(র.)এর ৭৯ তম ওরুস সম্পুর্ন


নিউজ পয়েন্ট ডেস্কঃ হজরত শাহ সূফী আরকুম আলী(র.)এর মরমি গানে মানুষের কল্যাণের কথা রয়েছে,তিনি ছিলেন একজন অসম্প্রদায়িক মরমী সাধক। বলেছেন এডভোকেট শামীমা আক্তার খানম এমপি

#গত ১৯ মার্চ ২০২১ খ্রিস্টাব্দ শুক্রবার রাতে দক্ষিণ সুরমার ধরাধরপুর গ্রামে উপমহাদেশের প্রখ্যাত সুফি সাধক হজরত শাহ সূফী আরকুম আলী(র.)এর ৭৮ তম বাৎসরিক ওরুস মোবারক অনুষ্ঠিত হয়।উক্ত ওরুস মোবারক উপলক্ষে আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে বক্তব্য রাখেন জাতীয় সংসদ সুনামগঞ্জ-সিলেটের মাননীয় সংসদ জনাব এডভোকেট শামীমা আক্তার খানম এমপি।

#মাজারের মাতোয়ালী হাজী মো.ছাদ উদ্দিনের সভাপতিত্বে এবং সহ সভাপতি কামাল উদ্দিন রাসেল এর পরিচালনায় অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এডভোকেট শামীমা আক্তার খানম এমপি বলেন আমাদের দেশ হলো ওলী- আউলিয়ার বাংলাদেশ আর বিশেষ করে আমাদের সিলেট হলো ৩৬০ আউলিয়ার স্মৃতিবিজড়িত পূর্ণভূমি, এবং বাংলাদেশের আধ্যাত্মিক রাজধানী হলো আমাদের এই সিলেট। সিলেট বিভাগে জন্মগ্রহণ করে সত্যি আমি গর্বিত এবং আমি নিজেকে একজন ভাগ্যবতী মহিলা হিসেবে ভাবি।এই দেশ তথা সিলেট বিভাগে অনেক বড় বড় মরমি সাধক এমনকি বাউল সাধকদের জন্ম হয়েছে যা ভাবতেও আমার ভালো লাগে।আমাদে সিলেট বিভাগে মরমি সাধক হজরত শাহ সূফী আরকুম আলী(র.)এর মতো এতো বড়মাপের একজন গুণী সাধকের জন্ম হয়েছে,জন্ম হয়েছে মরমি কবি হাছন রাজা,রাধারমণ দূর্বীন শাহ, বাউল সম্রাট শাহ আব্দুল করিম সহ অসংখ্য গুণী সাধকের।এসব গাুণী মরমি সাধকদের কালজয়ী গানে ফুটে উঠেছে স্রষ্টার কথা মানুষের কল্যাণের কথা এসব গুণী সাধকের গানে খুজলে পাওয়া যায়।তাই আমি বলি যদি কেউ তার সকল দুঃখ দুর্দশার কথা ভুলে থাকতে চায় তবে তাকে বারবার এসব সাধকদের সান্নিধ্য পাওয়ার আসে এখানে চলে আসতে হবে।প্রধান অতিথি তাঁর বক্তব্যে আরো বলেব আমি আপনাদের ভালোবাসায় মুগ্ধ এবং কৃতজ্ঞ,আমি আপনাদের দাওয়াতে এই মাজারের পবিত্র ওরুস মোবারকে না আসলে সত্যিই বিশ্বাস করতে পারতাম না যে মাজারের ওরুসে এমন সুন্দর একটি পরিবেশে আসলেই ওরুস মোবারক অনুষ্ঠিত হয়।আমি আবারও সুযোগ পেলে আপনাদের গ্রামে আসবো ইনশাআল্লাহ।তিনি হজরত শাহ সূফী আরকুম আলী(র.)এর মহিলা এবাদতখানার অসমাপ্ত কাজগুলো সমাপ্ত করার আশ্বাস দেন।

#অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের সহ সভাপতি ও সিলেট জেলা ও দায়রাজজ আদালতের পাবলিক প্রসিকিউটর এডভোকেট নিজাম উদ্দিন,সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের সদস্য হাবিবুর রহমান হাবিব,সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের উপ-প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক মো. মতিউর রহমান,দক্ষিণ সুরমা উপজেলার আওয়ামী লীগের সাবেক যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক রাজ্জাক হোসেন,প্রচার সম্পাদক হাজি আব্দুর রব,সেচ্ছাসেবক লীগ নেতা সারওয়ার আলাম মিতুন,সিলেটের আঞ্চলিক ভাষায় নির্মিত নাটকের জনপ্রিয় নাট্য অভিনেতা শাহেদ মোশাররফ কটাই মিয়া,রাসেল হামিদ কাট্রুস আলী,বাউল কালা মিয়া,যুক্তরাজ্য প্রবাসী বিশিষ্ট গীতিকবি নুরুল ইসলাম,জগন্নাথপুর উপজেলা কালচারাল ফোরামের সাধারণ সম্পাদক সংগীত শিল্পী টুনু মিয়া।আলোচনা সভার শেষে এসে অনুষ্ঠানে উপস্থিত হন সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক ও বর্তমান সহ সভাপতি জনাব আসাদ উদ্দিন,সভায় উপস্থিত ছিলেন সুনামগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগের সদস্য ও সুনামগঞ্জ জেলা পরিষদের সদস্য মাহতাবুল হাসান সবুজ,জগন্নাথপুর উপজেলা বাউল কল্যাণ পরিষদের সাধারণ সম্পাদক গিয়াস উদ্দিন মুন্না সহ সাধারণ সম্পাদক মো.সেলিম আহমদ,তেতলী ইউনিয়ন পরিষদের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান ফারুক আহমদ,সাবেক ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান আজমল আলী,সিলেট ভেজিটেবল ও ট্রেড সেন্টার ব্যাবসায়ী কমিটির সভাপতি ছাদ মিয়া ,সিলেট বিভাগীয় বাউল প্রমী বন্ধু মহলের সভাপতি জগন্নাথপুর পৌরসভার সাবেক কাউন্সিলার জাকির হোসেন, মাজার পরিচালনা কমিটি যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আব্দুল খালিক,সদস্য বদরুল আলম তুহিন,মুহিন আহমদ,বাউল কল্যাণ সমিতি, সিলেট বিভাগের সহ সভাপতি সাংবাদিক এম মুজিবুর রহমান, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক গীতিকার হাবিবুর রহমান হাবিব,এখলাছুর রহমান,সাংগঠনিক সম্পাদক বাউল বশর,শেখ জাহাঙ্গীর,শিবলু পাগলা,শাহাবুল আহমদ,গীতিকার তছির আলী, কবি আলা উদ্দিন,আবদুল হাসিম,বাউল শফিক উদ্দিন, আচাব আলী,আব্দুর রহিম,শিপলু,সুমন বশর ও বাবর রহমান।

#অনুষ্ঠানের শুরুতে সদ্য প্রয়াত মাননীয় সংসদ আলহাজ্ব মাহমুদ উস সামাদ চৌধুরী এমপি সহ মাজার পরিচালনা কমিটির যে সকল সদস্য এবং দেশ বিদেশ যেসব সংগীত প্রিয় মানুষ ইতিমধ্যে নিহত হয়েছেন তাদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে সবাই দাড়িয়ে এক মিনিট নিরবতা পালন করেন।অনুষ্ঠানে যুক্তরাজ্য প্রবাসী সদ্য প্রয়াত গীতিকবি মরহুম কুতুব আফতাব ভাইয়ের লিখা গানের বই,”আমি যদি যাই মরিয়া”বইয়ের মোড়ক উন্মোচন করেন অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি এডভোকেট শামীমা আক্তার খানম এমপি।অনুষ্ঠানে সংগীতে বিশেষ অবদানের জন্য তিনজন গুণী ব্যক্তি কে আয়োজক কমিটির পক্ষ থেকে শুভেচ্ছা স্মারক প্রধান করা হয়।যাদের কে শুভেচ্ছা স্মারক প্রধান করা হয় তারা হলেন বাংলাদেশের অহংকার প্রখ্যাত প্রবীণ বাউল শিল্পী ছালেহা বেগম,যুক্তরাজ্য প্রবাসী বিশিষ্ট সংগীত অনুরাগী দানবীর মানিক মিয়া ও আন্তর্জাতিক খ্যাতিসম্পন্ন স্বনামধন্য বাউল শিল্পী বাউল কালা মিয়া। আলোচনা শেষে এক এক মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে ভক্তি মূলক সংগীত পরিবেশ করেন প্রবীণ বাউল শিল্পী ছালেহা বেগম, বাউল কালা মিয়া,লাল মিয়া,সিরাজ উদ্দিন, মিনারা বেগম,বাংলাদেশের উদীয়মান বাউল শিল্পী দীপ্তি সরকার,নুনু গাজী,সাবিনা আক্তার,নিউ শাহানা,ও আরকুম শাহ শিল্পী গোষ্ঠী।

আপনার মতামত দিন
এই বিভাগের আরও খবর

সিলেটের সর্বশেষ
© All rights reserved 2020 © newspointsylhet